উইন্ডোজ পিসির জন্য অবশ্যই দরকারি ১৪টি বেষ্ট সফটওয়্যার + ক্র্যাক + টিপস । মেগা পোস্ট — All In One ।

উইন্ডোজ পিসির জন্য অবশ্যই দরকারি ১৪টি বেষ্ট সফটওয়্যার + ক্র্যাক + টিপস । মেগা পোস্ট — All In One ।

Posted in Computer.

আমরা যারা কম্পিউটার ব্যাবহার করি তাদের বেশিরভাগেরই অপারেটিং সিস্টেম হচ্ছে মাইক্রোসফটের উইন্ডোজ । একটি উইন্ডোজ কম্পিউটার এর জন্য মাস্ট দরকারি কিছু সফটওয়্যার নিয়েই আজকের পোস্ট । একজন ইন্টারমিডিয়েট লেভেলের কম্পিউটার ইউজারের জন্য যেসকল সফটওয়্যার দরকার সবগুলো বেষ্ট সফটওয়্যারই এই লিস্টে রাখা হয়েছে সাথে পেইড সফটওয়্যারগুলোর ক্র্যাকও দেওয়া আছে । আমরা অনেকেই কিছু নির্দিষ্ট সফটওয়্যার নিয়ে পোস্ট করে থাকি, হয় IDM এর ক্র্যাক নিয়ে নয়ত Photoshop নিয়ে । কিন্তু আজকের একটা পোস্টেই দরকারি সকল সফটওয়্যারকেই অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে । সাথে আপনার জন্য কোন সফটওয়্যারটি বেষ্ট হবে তাও এই পোস্ট থেকে জানতে পারবেন । তাই টাইটেলে মেগা পোস্ট লিখে দিয়েছি।

Google Chrome for Web Browsing

ওয়েব ব্রাউজিংয়ের জন্য আমার মতে বেষ্ট হচ্ছে গুগল ক্রোম । এর সিম্পল ডিজাইন, ফাস্ট ব্রাউজিং, সিঙ্কিং সুবিধা এবং সিকিউরিটির জন্য অন্যান্য ব্রাউজার থেকে এটিকে এগিয়ে থাকবে । বর্তমানে সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং সবচেয়ে বেশি ব্যাবহ্রত ওয়েব ব্রাউজার এটি । ৬২.৪% মানুষ গুগল ক্রোম ইউজ করে থাকে । ক্রোম ব্রাউজারের এত জনপ্রিয়তার কারণগুলো হলোঃ-Large Library Of Extensions And Add-Ons, Clean Simple User Interface, Searching From The Address Bar, Chromes Task Manager, Incognito Mode, Regular Update ইত্যাদি । গুগলের প্রোডাক্ট বলে কথা, সামথিং স্পেশাল । সিমিলার বেষ্ট সফটওয়্যারগুলো হলো Microsoft Edge, Mozilla Firefox । এর মধ্যে Microsoft Edge উইন্ডোজ ১০ এর সাথে বিল্ট-ইন ভাবে দেওয়া থাকে ।

Download Google Chrome

Download Firefox

PotPlayer as Media Player

PotPlayer দক্ষিণ কোরীয় ইন্টারনেট কোম্পানি Kakao দ্বারা ডেভেলপকৃত মিডিয়া প্লেয়ার সফটওয়্যার । অন্যান্য জনপ্রিয় মিডিয়া প্লেয়ার যেমন ভিএলসি মিডিয়া প্লেয়ার,জিওএম প্লেয়ার, কেএম প্লেয়ার এর মতো PotPlayer ও একটি জনপ্রিয় মিডিয়া প্লেয়ার । PotPlayer একটি লাইটওয়েট, হাইলি কাস্টমাইজেবল, স্মুথ ইউজার ইন্টারফেস এবং প্রায় সকল মিডিয়া ফরম্যাট সাপোর্টেড সফটওয়্যার । এজন্য অন্যান্য মিডিয়া প্লেয়ারগুলো থেকে আমি এটিকে এগিয়ে রাখব । PotPlayer সম্পুর্ণ ফ্রী একটি সফটওয়্যার । এর অন্য আরেকটি ভালো দিক হচ্ছে এটির রেগুলার আপডেট । প্রতিটি আপডেটেই নতুম থিম, বাগ ফিক্সেস এবং নতুন ফিচার যুক্ত করে থাকে ।

Download Potplayer (Size = 25MB.)

Download VLC Player

Download KM Player

Notepad++ a Simple Text Editor

আমরা সবাই নোটপ্যাডকে অবশ্যই চিনি । Notepad হচ্ছে উইন্ডোজ এর সাথে বিল্ট-ইন ভাবে দেওয়া টেক্সট এডিটর । টেক্সট এডিটর হচ্ছে এমন ধরণের প্রোগ্রাম যা দিয়ে প্লেইন টেক্সট এডিট করা যায় । Notepad এর ইনক্রিমেন্টাল অপারেটর ++ যুক্ত করে এর নাম দেওয়া হয়েছে Notepad++ । Notepad++ হচ্ছে একটি টেক্সট এডিটর এবং সোর্স কোড এডিটর যাতে অনেকগুলো ফিচার যুক্ত করা হয়েছে । যেমনঃ- syntax highlighting, code folding, autocompletion, Autosave,Split screenইত্যাদি । আরও একটি ভালো সুবিধা হচ্ছে এতে প্লাগিন ইন্সটল করে আরও সুবিধা যুক্ত করা যায় । Notepad++ একটি ফ্রী এবং ওপেন সোর্স টেক্সট এডিটর । এর মতো অন্যান্য বেষ্ট সফটওয়্যারগুলো হলো Sublime Text, Brackets ।.

Download Notepad++ (Size = 3.63MB)

Download Sublime Text (8MB)

Download Brackets (65 MB)

MalwareBytes for Secuirity

MalwareBytesহচ্ছে উইন্ডোজ এর জন্য একটি এন্টি-ম্যালওয়্যার সটওয়্যার ।MalwareBytesএর কাজ হচ্ছে কম্পিউটার থেকে ম্যালিসিয়াস সফটওয়্যার, অ্যাডওয়্যার, স্পাইওয়্যার এবং অন্যান্য ক্ষতিকারক সফটওয়্যারগুলোকে স্ক্যান করে রিমুভ করে দেওয়া ।MalwareBytesএন্টিভাইরাস থেকে এন্টিম্যালওয়্যার হিসেবেই বেশি কার্যকর । এন্টিভাইরাসের জন্য আপনার উইন্ডোজ ১০ এর সাথে যেই Windows Defender দেওয়া থাকে সেটিই যথেস্ট ।MalwareBytesএকটি ফ্রী সফটওয়্যার এবং এর একটি পেইড ভার্সনও রয়েছে যাতে কিছু বাড়তি ফিচার রয়েছে । তবে একজন ইন্টারমিডিয়েট লেভেলের কম্পিউটার ইউজারের জন্য ফ্রী ভার্সনটিই যথেস্ট । নিচে ফ্রী ভার্সন লিঙ্ক এবং ফুল ভার্সন লিঙ্ক দুইটাই দেওয়া আছে । ফুল ভার্সনের লিঙ্কটিতে গিয়ে জাস্ট ডাউনলোড করে ইন্সটল করবেন অন্য কিছু করতে হবে না । ফুল ভার্সনটা ইন্সটল করতে সমস্যা হলে আপনার ডিফল্ট যে এন্টিভাইরাস রয়েছে সেটা অফ করে নিবেন ।

Download MalwareBytes Free Version (Size = 60MB)

Download MalwareBytes Crack Version

Photshop Photo Editor

উইন্ডোজ কম্পিউটারের জন্য নিঃসন্দেহে সবেচেয়ে বেষ্ট ফটো এডিটর হচ্ছেPhotshopবলা চলে যেকোন অপারেটিং সিস্টেমের যেকোন সফটওয়্যার থেকে বেষ্ট । একজন বিগিনার লেভেলের কম্পিউটার ইউজার থেকে শুরু করে এডভান্স গ্রাফিক্স ডিজাইনাররাও ফটোশপ ব্যাবহার করে থাকেন ।Photshopসাধারণত একটি অ্যাডভান্স ফটো এডিটর সফটওয়্যার । অ্যাডভান্স গ্রাফিক্সের কাজে এটি ব্যাবহার করা হয় । তাই যারা একদম নতুন তাদের জন্য একটি সহজ ও সিম্পল ফটো এডিটর হচ্ছে PhotoPad Photo Editor । নিচে সফটওয়্যারটির লিঙ্ক দেওয়া হয়েছে । ফটোশপ এর স্ট্যান্টার্ড ভার্সন হচ্ছে Photoshop CS6 । নিচে Photoshop CS6 পোর্টেবল ভার্সনের লিঙ্ক দেওয়া আছে । ডাউনলোড করে নিবেন, মাত্র ৭২ এম্বি । License Key এর জন্য এই কোডটা 8MEH-RU7JQ-ACDRM-MQEPR-G3S23-FEMBR-ACED ব্যাবহার করবেন । Adobe Photoshop CC 2019 নিয়ে শীঘ্রই একটি বিস্তারিত পোস্ট করব ইনশাল্লাহ ।

Download Link Photoshop CS6 with Crack (72 MB)

Download LinkPhotoPadPhoto Editor(4.19MB)

PhotoPadLicense Key:- 216832349-uhwmclfx

Filmora Video Editor

Filmoraবিগিনারদের জন্য একটি বেষ্ট ভিডিও এডিটর সফটওয়্যার । যারা ভিডিও এদিটিংয়ে নতুন তারা সহজেইFilmoraএর সাহায্যে ভিডিও এডিটিং করতে পারবেন । কম সময়ে ভালো মানের ভিডিও তৈরি করার জন্য এটি ব্যাবহার করতে পারেন । যদিও এটি বিগিনার ফ্রেন্ডলি, তারপরেও এটাতে অনেক অ্যাডভান্স পাওয়ারফুল ফিচারস রয়েছে । যেমনঃ- Split Screen,Advanced Text Editing, Tilt-Shift, Mosaic (Blurring), Video And Audio Controls, Layer Multiple Video Clips, Audio-Mixe, Create Backgrounds Using Chroma Key (Green Screen), Screen Recording, Noise Removal, Speed Control ইত্যাদি অনেক ফিচারস রয়েছে । Filmora একটি পেইড সফটওয়্যার । নিচে দেওয়া লিঙ্ক থেকে ডাউনলোড করে নিবেন । সেখানে ইন্সটলার ফাইল্টি থেকে প্রথমে সফটওয়্যারটি ইন্সটল করে নিবেন । তারপর Crack ফোল্ডার থেকে Crack ফাইলটি কপি করে ইন্সটলেশন ডিরেক্টরিতে মানে যে ফোল্ডারে সফটওয়্যারটি ইন্সটল করেছিলেন সেখানে পেস্ট করে দিবেন । ব্যাস, ফুল ভার্সন হয়ে যাবে । এটা নিয়ে বিস্তারিত একটা পোস্ট এখান থেকে দেখে নিবেন । আরও একটি সিম্পল এবং সহজ একটি ভিডিও এডিটর হলো VideoPad Video Editor.

Download Link Filmora 2018 with Crack (212MB)

Download LinkVideoPadVideo Editor (5.65MB)

VideoPadLicense Key 228697782-yilwcljq

WavePad Sound Editor

যারা ইউটিউবে ভিডিও কন্টেন্ট তৈরি করে থাকেন,তাদের জন্য অডিও এডিটিং একটি গুরুত্বপুর্ন কাজ ।অডিও কোয়ালিটি যদি ভালো না হয় তাহলে ভিডিওটা যত ভালোই হোক না কেন আপনি ভিউয়ারের মনোযোগ ধরে রাখতে পারবেন না । সো ভালো অডিও তৈরি করা ও এডিট করা অতীব জরুরি । আর সবচাইতে বেশি জরুরি যেটা সেটা হলো একটি ভালো অডিও এডিটর । ভালো এবং হাইলি প্রফেশনাল সফটওয়্যারের নাম বলতে গেলে অ্যাডোবি অডিশন,এফএল স্টুডিও এই টাইপের সফটওয়্যারগুলোর নাম বলতে হবে । কিন্তু যারা বিগিনার মানে যারা নতুন তারা এসব সফটওয়ারের ইন্টারফেস দেখলেই মাথা ঘুরাবে । নতুনদের জন্য এমন সফটওয়্যার ভালো হবে,যেগুলোর ইউজার ইন্টারফেস সহজ এবং ভিজুয়াল ।WavePad Sound Editor.এটাNCH Softwaresএকটি পপুলার সফটওয়্যার । সফটওয়্যারটা খুবই ফাস্ট এবং ইজি । এর ইন্সটলার সাইজ অনেক কম মাত্র মাত্র ১ এম্বি । যারা নিজেরা শখ করে গান রেকর্ডিং করে থাকেন তারা খুব সহজেই গানের কোয়ালিটি ইম্প্রোভ করতে পারবেন । আর যারা ইউটিউবে কাজ করে থাকেন তারাও তাদের দরকারি সকল কাজ সেরে ফেলতে পারবেন । সফটওয়্যারটি প্রফেশনাল মানের তাই সফটওয়্যারটি ফ্রী না । বাট চিন্তার কিছু নাই । নিচের লিঙ্ক থেকে প্রথমে সফটওয়্যারটা ডাউনলোড করুন । ইন্সটল করে ওপেন করুন,তারপরBurger iconFileRegister Upgrade to Master Editionএ ক্লিক করে এই কোডটা বসিয়ে দিন 214025761-wacfclkd । ব্যাস ফুল ভার্সন হয়ে গেল । এই সিরিয়াল কি টা যেকোন ভার্সনের জন্যই কাজ করবে আশা করি । । অনেকেইAudacityব্যাবহার করে থাকেন । এটাও অনেক ভালো এবং ফ্রী একটি সফটওয়্যার । নতুনরাও ব্যাবহার করতে পারেন ।

Download WavePad Sound Editor (1.25MB)

Download Audacity

Internet Download Manager

যারা কম্পিউটার ব্যাবহার করে থাকেন তারা অবশ্যই এই সফটওয়্যারটিকে চিনে থাকবেন । না চিনারও কারণ নাই । বহুল জনপ্রিয় এই সফটওয়্যার CNET এর মোস্ট ডাউনলোড হওয়া সফটওয়্যারগুলোর মধ্যে একটি । দ্রুতগতিতে ফাইল ডাউনলোড করা এবং সকল ডাউনলোড ফাইলগুলো ম্যানেজ করাই এই সফটওয়্যারটির কাজ । ইউটিউবসহ যেকোন ওয়েবসাইট থেকে সহজে যেকোন ফাইল ডাউনলোড করা যায় এই সফটওয়্যারটি দিয়ে । যেকোন ওয়েবপেজের যেখানেই কোন মিডিয়াফাইল থাকবে সেখানেই একটি পপআপ শো করবে । পপআপে ক্লিক করে সহজেই ফাইলগুলো ডাউনলোড করা যাবে । ভিডিও ডাউনলোড করার ক্ষেত্রে নির্দিস্ট ফরম্যাট এবং নির্দিস্ট রেজুলেশনের ভিডিও ডাউনলোড করতে পারবেন । নিচের লিঙ্কটি থেকে সফটওয়্যারটি ক্র্যাকসহ ডাউনলোড করে নিবেন । ক্র্যাক করা খুব ইজি । প্রথমে সফটওয়্যারটি ইন্সটল করবেন । তারপর Patch ফোল্ডার থেকে আপনার কম্পিউটারের প্রসেসর অনুযায়ী ৩২বিট অথবা ৬৪ বিট ক্র্যাক ফাইলটি ইন্সটলেশন ডিরেক্টরিতে অর্থাৎ যে ফোল্ডারে সফটওয়্যারটি ইন্সটল করেছিলেন সেখানেই ইন্সটল করবেন । সাধারণত ক্র্যাক ফাইল ইন্সটলের ক্ষেত্রে ডিফল্টভাবে কাঙ্ক্ষিত ডিরেক্টরিই সিলেক্ট করা থাকে ।

Download Link IDM with Crack (10MB)

FastStone Capture, a Powerful ScreenShot Utilities

FastStone Capture হচ্ছে একটি পাওয়ারফুল পিসি স্ক্রীনশট ইউটিলিটি । যদিও উইন্ডোজ ১০ এ ডিফল্টভাবে স্ক্রীনশট নেওয়া যায় Win+Prt Sc প্রেস করে । কিন্তু ঐ পদ্ধতিতে শুধুমাত্র ফুল-স্ক্রীন শট নেওয়া যায় । কিন্তু FastStone Capture এ আপনি অনেকভাবে স্ক্রীন ক্যাপচার করতে পারবেন । যেমনঃ- Active Window Capture, Window/Object Capture, Rectengular Selection Capture, Free-Hand Selection Capture ইত্যাদি আরও বেশ কিছুভাবে স্ক্রীনশট নেওয়া যায় । তাছাড়া এটা দিয়ে স্ক্রীন-ভিডিও রেকর্ডও করা যায় । FastStone Capture একটি ইমেজ এডিটরও বটে । একটি স্ক্রীনশট এডিট করার জন্য যাবতীয় ফিচার ঐ এডিটরে আছে । নিচের লিংক থেকে সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে নিবেন । উক্ত জিপ ফাইলে একটি Keygen ও দেওয়া আছে । Keygen দিয়ে সফটওয়্যারটিকে ফুল ভার্সন করতে পারবেন । FastStone Capture নিয়ে একটি বিস্তারিত পোস্ট এখান থেকে পড়ে নিবেন ।

Download Link FastStone Capture with Crack (4MB)

Ccleaner, PC Cleaning Tools

Ccleaner কে হয়ত অনেকেই চিনে থাকবেন । কম্পিউটার এর যাবতীয় অপ্রয়োজনীয় ফাইল যেমনঃ- Junk Files, Temporary Files, Internet Cookies যেগুলো আপনার কম্পিউটারকে স্লো করে দেয় সেগুলো ডিলিট করা এই সফটওয়্যারের কাজ । আরও বেশ কিছু ফিচার রয়েছে যেমনঃ- Registry Cleaner, Uninstaller, Disk Analyzer, Duplicate Finder ইত্যাদি । সফটওয়্যারটি License Key দিয়ে প্রোফেশনাল ভার্সন করে নিলে আরও বাড়তি কিছু সুবিধা পাওয়া যায় । নিচের অফিসিয়াল সাইটের লিংক থেকে প্রথমে সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে ইন্সটল করে নিন । ইন্সটল করে ওপেন করুন, তারপর বামপাশের Upgrade লিখায় ক্লিক করে Name এ যেকোন নাম দিন এবং License Key তে এই কোডটা C2YW-IAHG-ZU62-INZQ-WZPC বসিয়ে দিন, ব্যাস ফুল ভার্সন হয়ে যাবে ।

Download Ccleaner (16MB)

Search Everything, Powerful Search Tools

আপনার কম্পিউটারের ফাইল এক্সপ্লোরার থেকে যেকোন ফাইল সহজে সার্চ করে খুঁজে নেওয়ার জন্য এই সফটওয়্যারটি ইউজ করতে পারেন । উইন্ডোজে যেই ডিফল্ট File Explorer রয়েছে সেখান থেকে কোন সার্চ করলে অনেক দেরী হয়, অনেক সময় কাঙ্ক্ষিত রেজাল্ট পাওয়া যায় না । কিন্তু এই সফটওয়্যারটিতে আপনার সার্চ করতে দেরী হবে কিন্তু সার্চ রেজাল্ট শো করতে দেরী হবে না । বিভিন্ন .dll ফাইল খুঁজে নেওয়ার জন্য আমি এই সফটওয়্যারটি ব্যাবহার করে থাকি । সফটওয়্যারটিতে অনেকভাবে সার্চ করার অপশন রয়েছে যেমনঃ- ক্যাটাগরি অনুযায়ী সার্চ করা, ফাইল টাইপ অনুযায়ী সার্চ করা ইত্যাদি ফিচারস রয়েছে । সফটওয়্যারটি খুবই ফাস্ট, লাইটওয়েট এবং এর পোর্টেবল ভার্সনও রয়েছে । নিচে দেওয়া লিংক থেকে ডাউনলোড করে ট্যাস্কবারে পিন করে রাখতে পারেন ।

Download Search Everything (1.4MB)

Picasa, Best Image Viewer

উইন্ডোজের কম্পিউটারের জন্য একটি বেষ্ট ইমেজ ভিউয়ার সফটওয়্যার হচ্ছে গুগলের Picasa । যদিও গুগল এখন আর Picasa কে কন্ট্রোল বা সাপোর্ট করে না । তারপরেও আমার মতে Picasa উইন্ডোজের জন্য বেষ্ট ইমেজ ভিউয়ার । আপনি একবার ব্যাবহার করলেই বুঝতে পারবেন কেন এটা ভালো লাগে । ইমেজ ভিউয়িং ছাড়াও আপনি এটা দিয়ে হালকা এডিটিংও করতে পারবেন । যেমনঃ- Croping, Resizeing, Red-eye, Retouch, Text, Effects ইত্যাদি বেশ কিছু এডিটিং টুলস রয়েছে । এটা ফ্রী সফটওয়্যার । নিচের লিংক থেকে ডাউনলোড করে নিন । আরও একটি বেষ্ট ইমেজ ভিউয়ার সফটওয়্যার হলো FastStone Image Viewer । উপরের FastStone Capture সফটওয়ারটির সাথে দেওয়া Keygen দ্বারা FastStone Image Viewer কেও ফুল ক্র্যাক করে নিতে পারবেন ।

Download Picasa (16 MB)

Download FastStone Image Viewer6.7MB

SHAREit for PC, File Transfering Tools

Shareitকে চিনিয়ে দিতে হবে না অবশ্যই । যারা স্মার্টফোন ইউজ করে থাকেন তাদের জন্য বলা চলে একটি অত্যাবশ্যকীয় অ্যাপ্লিকেশান । Shareit আপনি আপনার কম্পিউটারেও ব্যাবহার করতে পারবেন । কম্পিউটার থেকে কম্পিউটারে অথবা মোবাইল থেকে কম্পিউটারে ফাইল ট্রান্সফার করার জন্য Shareit ব্যাবহার করা হয় । ফাইল ট্রান্সফারিংয়ের জন্য আপনার কম্পিউটারে Wi-fi অন করে রাখতে হবে । তারপর মোবাইলের SHAREit ওপেন করে Connect Pc লিখায় ট্যাপ করবেন । সার্চ করে কম্পিউটারের SHAREit পাওয়া গেলে সেখানে ট্যাপ করে পাসওয়ার্ড দিয়ে কানেক্ট করতে পারবেন । সম্পুর্ণ ফ্রী একটি সফটওয়্যার । নিচের দেওয়া লিংক থেকে ডাউনলোড করে নিবেন । SHAREit ডাউনলোড করতে গিয়ে আমি অনেক ধরণের ভুয়া সফটওয়্যার পেয়েছি যেগুলো দিয়ে কোন কাজ তো হয়ই না বরং উলটো আরও সমস্যা করে । তাই আপনাদের সুবিধার্তে অফিসিয়াল লিংক দিয়ে দিলাম ।

Download Link SHAREit (6.1 MB)

WinRAR

Alexander Roshalকর্তৃক ডেভেলপকৃত WinRAR একটি ফাইল কমপ্রেশন এবং আনজিপার সফটওয়্যার । অনেকেই ব্যাবহার করে থাকেন হয়ত । অনেকেই বললে ভূল হবে, প্রায় সকল কম্পিউটার ইউজাররাই এটা ব্যাবহার করে থাকেন । তাই এটা সম্পর্কে আমার আর বলার দরকার নাই । তবে একটা মজার ব্যাপার হচ্ছে, WinRAR এর ফ্রী ট্রায়াল ৪০ দিন, কিন্তু এই ৪০ দিন কখনোই শেষ হয় না । আপনি আজীবন সফটওয়্যারটি ফ্রীতেই ব্যাবহার করতে পারবেন । শুধুমাত্র মাঝে মাঝে একটা পপআপ উইন্ডো শো করবে, সেটা ক্লোজ করে দিলেই হয় । নিচের লিংক থেকে ডাউনলোড করতে পারেন । 7-Zip ও আরও একটি জনপ্রিয় সফটওয়্যার ।

Download WinRAR (3MB)

Download 7-Zip

উপরের সফটওয়্যারগুলো আপনার কম্পিউটারে ইন্সটল করা থাকলে, আপনার কম্পিউটারটি যেকোন কাজ করার জন্য প্রস্তত । আমি আগেই বলেছি পোস্টটি একজন ইন্টারমিডিয়েট লেভেলের কম্পিউটার ইউজারের কথা চিন্তা করেই করা হয়েছে । তাই ইন্টারমিডিয়েট বা মধ্যবিত্ত লেভেলের কম্পিউটার ইউজারের জন্য এর থেকে বেশী কোন সফটওয়্যার লাগবে না বলে মনে করি । যেহেতু এই ওয়েবসাইটের সকল ভিজিটর বাঙালি । তাই আরও দুইটি সফটওয়্যার এর লিংক নিচে দিয়ে দিলাম । সেগুলো হলো বাংলা লিখার জন্য Avro Keyboard এবং একটি বাংলা ডিকশনারি Shadin Ovidhan . দুটো সফটওয়্যারই ফ্রী সফটওয়্যার ।

Download Avro Keyboard (11.8MB)

Download Shadin Ovidhan (13.2MB)

সো এই ছিল আজকের পোস্ট । পোস্টটা লিখতে মোটামোটি কষ্টই হইছে, তাই ভালো লাগলে একটালাইকদিয়েন।

কষ্টের ফেরিওয়া Articles

Recent

Recent Articles From: কষ্টের ফেরিওয়া

Popular

Popular Articles From: কষ্টের ফেরিওয়া